আঁকটোবর ২০২২- প্রথম সপ্তাহ - ২

সত্যপীর এর ছবি
লিখেছেন সত্যপীর (তারিখ: বুধ, ০৫/১০/২০২২ - ৭:০৮পূর্বাহ্ন)
ক্যাটেগরি:

ছবি আঁকতে পারিনা নাইলে নিজেই এঁকে উল্টায় ফেলতাম। সুতরাং প্ল্যান বি - নয় বছরের মেয়েটাকে বললাম তার প্রিয় চরিত্রের একটা ছবি এঁকে দিতে।


আঁকটোবর ২০২২- প্রথম সপ্তাহ- ১

সজীব ওসমান এর ছবি
লিখেছেন সজীব ওসমান (তারিখ: রবি, ০২/১০/২০২২ - ১২:১৬পূর্বাহ্ন)
ক্যাটেগরি:

আজকে আঁকটোবরের প্রথম দিন, তাই প্রথম ছবিটা আমিই দিলাম। অক্টোবর মাসে আমরা প্রতিবছর সচলে ছবি এঁকে উদযাপন করে ইঙ্কটোবর কার্যক্রম। বিশ্ব ইঙ্কটোবর উদযাপন সম্বন্ধে জানতে এখানে খোঁজ নিতে পারেন। আমরাও প্রতিদিন না হলেও অক্টোবর জুড়ে প্রতি সপ্তাহে একটা করে ছবি আঁকতে পারি বিভিন্ন বিষয়ে।


সিসিফাসের শাস্তি এবং আমাদের 'অর্থহীন' জীবন

তানভীর এর ছবি
লিখেছেন তানভীর (তারিখ: শনি, ০১/১০/২০২২ - ১২:৩৫পূর্বাহ্ন)
ক্যাটেগরি:

সিসিফাস- হোমারের 'ইলিয়াডে' বর্ণিত গ্রীক পুরাণের একটি চরিত্র। কথিত আছে, সিসিফাস ছিলো প্রাচীন এফিরিয়া বা কোরিন্থের রাজা। অনেকটা দুষ্টু রাজা বলা যায়, নিজের ভাতিঝিকে ফুঁসলানো আর প্রজা ও পর্যটকদের ওপর অহেতুক ক্ষমতা প্রদর্শনের জন্য দেবতারা সিসিফাসের উপর ক্ষিপ্ত ছিলো। দেবতাদের রাজা জিউস যখন রাজকুমারী এজিনাকে অপহরণ করে সিসিফাসের কারণে তার বউ হেরা ও এজিনার বাপের কাছে ধরা খেলো, জিউস তখন রেগেমেগে গ্রীক


মানুষ সংস্কারা: অস্তিত্বের সন্ধানে- আমি কে?

কর্ণজয় এর ছবি
লিখেছেন কর্ণজয় (তারিখ: রবি, ২৫/০৯/২০২২ - ৮:৪৮অপরাহ্ন)
ক্যাটেগরি:

আমরা কি নিজের চোখে
নিজের মুখটা দেখেছি কখনও?
দেখিনি। আমরা আমাদের দেখি আয়নায়।
চোখ মেললে তুমি দেখবে আমাকে; আমি তোমাকে।
তাহলে; আমি আমাকে কীভাবে দেখবো?
তুমি তোমাকে?
তিনি বললেন।।

পূর্বকথা


হাওয়াপাগলা পাখটিভিস্ট বন্ধুটি গুমরে কাঁদে

অতিথি লেখক এর ছবি
লিখেছেন অতিথি লেখক (তারিখ: বিষ্যুদ, ০৮/০৯/২০২২ - ১২:৩১পূর্বাহ্ন)
ক্যাটেগরি:

অধিক কী বলি আর
পাখটিভিস্ট বন্ধু ওয়াছিম কাগমারির কথা।
হলে গেনু পরস্ত্রীক, 'হাওয়া' সিনামাটি অবলোকিনু
বাইর হইতে না হইতে কুথা হতে আসিয়া সে ঠাসিল কলার মম।
হুঙ্কারিয়া শুধাল কুশল, খেলায়েত কবি! শালিকের মাংস দিয়া ভাতভুত খেয়ে
খুব মুটাগাটা হয়েছস দেহি! তারপর সে দৃষ্টি হানে হাওয়াসাথী পরস্ত্রীর দিকে,
হাসে কিটিকিটি।

আমি পড়ি মহা মুশকিলে। শালিকের মাংস আমি কেন খাব? পাবই বা কুথা?


'হাওয়া' দেখে এসে লিখছি

অতিথি লেখক এর ছবি
লিখেছেন অতিথি লেখক (তারিখ: মঙ্গল, ০৬/০৯/২০২২ - ২:৩৪পূর্বাহ্ন)
ক্যাটেগরি:

প্রবাসে বসে দেশের সিনেমা দেখার সুযোগ সঙ্গত বিভিন্ন কারণে সীমিত। 'হাওয়া' সে সব সীমানা পেরিয়ে আমার নাগালে আসার পর দেখে ফেললাম চটপট।


নরম কোমল দিলরুবা...

তিথীডোর এর ছবি
লিখেছেন তিথীডোর (তারিখ: মঙ্গল, ২৩/০৮/২০২২ - ৬:৪৫অপরাহ্ন)
ক্যাটেগরি:

ক্রমবর্ধমান জ্বালানি সংকট মোকাবেলায় প্রতি সপ্তাহে একদিন করে ওয়ার্ক ফ্রম হোমের পলিসিতে গেছে অফিস।
আজ সপ্তাহের সেই দিন।

প্রেশার কমেটমে গতকাল রীতিমতো গিয়ানজাম লাগিয়ে দিয়েছিলাম৷
আমার এমনিতেই লো প্রেশার। দুপুরে লাঞ্চ করতে করতে চারটা বাজল। এরপর দেখি পেকে ভর্তা হয়ে যাওয়া সাগরকলার মতো ঘাড় চটাৎ চটাৎ করে পড়ে যাচ্ছে৷ 'বল বীর, বলো চির উন্নত মম শির' জাতীয় কোবতেটোবতে আওড়ে কোন লাভ হলো না।


স্থানাংক

রায়হান আবীর এর ছবি
লিখেছেন রায়হান আবীর (তারিখ: সোম, ২২/০৮/২০২২ - ৩:১৫পূর্বাহ্ন)
ক্যাটেগরি:

যখন ব্যস্ত ফুলের দল মুহূর্ত গুণে
চেনা রাস্তায় ঘরে ফিরে
তখন মেরুন সন্ধ্যালোকে
কোলাহলে আড়াল তোর আমার গুঞ্জন

নিয়ন অন্ধকারে মুখোশ খুলে
তোর সুরে চিৎকারে
দৃষ্টির কামনায় মমতার ছন্দ
বাধার অরণ্যে তোর ঘ্রান
একমাত্র নিশ্চিত স্থানাংক

ভাঙনের খবরে ঘুম ভাঙে
অচেনা ঘরে কম্পিত শব্দে
সতন্ত্র সাহসীর ভয়ার্ত চিৎকারে
হঠাৎ খুন হয়েছে
স্বপ্ন মোড়া আমার বিষণ্নতার একমাত্র ঠিকানা


খুমজুং গ্রাম ও ইয়েতির ব্রহ্মতালু!

ওডিন এর ছবি
লিখেছেন ওডিন (তারিখ: বিষ্যুদ, ১৮/০৮/২০২২ - ১০:২৯অপরাহ্ন)
ক্যাটেগরি:

এভারেস্ট বেস ক্যাম্প ট্রেকে প্রায় সবাই যে কাজটা করে তা হলো উচ্চতাজনিত অসুস্থতা এড়ানোর জন্য অত্র এলাকার সবচে বড় গ্রাম/মিনি-শহর নামচে বাজারে দুটো রাত থাকা। এই মে মাসের এক বৃষ্টিভেজা বিকেলে ভেজা কাপড় চোপড় আর গাট্টি বোঁচকা নিয়ে কাঁপতে কাঁপতে যখন আমরা সাড়ে তিন হাজার মিটার উঁচুতে নামচে বাজার পৌঁছলাম, তখনো পর্যন্ত আমাদের পরিকল্পনা ছিল সেখানেই দু রাত থাকার। পরের দিন সকালে আমরা হয় খুমজুং গ্রাম


বঙ্গবন্ধু হত্যাকাণ্ডঃ নানা প্রসঙ্গ

নুরুজ্জামান মানিক এর ছবি
লিখেছেন নুরুজ্জামান মানিক (তারিখ: রবি, ১৪/০৮/২০২২ - ৮:০৬অপরাহ্ন)
ক্যাটেগরি:

বাঙালি জাতির ইতিহাসের সবচেয়ে নৃশংস হত্যাকাণ্ডটি সংঘটিত হয়েছিল ১৯৭৫ সালের ১৫ আগস্ট পাখি ডাকা ভোরে। বাংলাদেশের স্থপতি ও রাষ্ট্রপতি বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এবং তাঁর পরিবারের সকল সদস্যকে সেদিন পৈশাচিক উন্মত্ততায় হত্যা করা হয়েছিল। ঘটনাক্রমে বঙ্গবন্ধুর দুই আত্মজা শেখ হাসিনা ও শেখ রেহানা দেশের বাইরে থাকায় প্রাণে বেঁচে যান। ধানমন্ডির ৩২ নম্বর সড়কের ঐতিহাসিক বাসভবনটিতে অবস্থানরত বঙ্গবন্ধুর পরিবারের যেস